আজ বুধবার, ২৩ জুন, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, ৯ আষাঢ়, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ১২ জিলকদ, ১৪৪২ হিজরি
আজ বুধবার, ২৩ জুন, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, ৯ আষাঢ়, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ১২ জিলকদ, ১৪৪২ হিজরি

দেশের ২২-২৪ ভাগ অঞ্চল গাছপালায় আচ্ছাদিত হবে: কাদের

আওয়ামী লীগ সরকার আগামী ৫ বছরে দেশের ২২ থেকে ২৪ ভাগ অঞ্চল গাছপালায় আচ্ছাদিত করার পরিকল্পনা গ্রহণ করেছে বলে জানিয়েছেন সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের।
তিনি বলেন, বাংলাদেশে বঙ্গবন্ধুই প্রথম সবুজ বিপ্লবের ডাক দিয়েছেন। দেশকে সবুজায়ন ও বনায়নের মধ্য দিয়ে বঙ্গবন্ধুর সোনার বাংলাদেশ গড়ে তুলতে হবে।

শনিবার ২৩ বঙ্গবন্ধু অ্যাভিনিউ এ অবস্থিত আওয়ামী লীগের বন ও পরিবেশ বিষয়ক উপ-কমিটি আয়োজিত বিশ্ব পরিবেশ দিবস উপলক্ষে এক আলোচনা সভায় ভার্চুয়ালি এসব কথা বলেন ওবায়দুল কাদের।

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আরো বলেন, শেখ হাসিনা সরকার পরিবেশবান্ধব সরকার। পরিবেশকে দূষণমুক্ত রাখতে সরকার নানান পরিকল্পনা গ্রহণ করেছে। আওয়ামী লীগ সরকার দেশ ও দেশের ভারসাম্য রক্ষায় বিভিন্নভাবে পর্রামশ দিয়ে যাচ্ছেন।

সেতুমন্ত্রী বলেন, নদীর নাব্যতা ও খাল-বিলকে রক্ষা করার পাশাপাশি গাছ লাগাতে হবে এবং আমাদের পরিবেশের প্রতি আরো যত্নবান হতে হবে। দেশের পরিবেশ রক্ষায় সর্বস্তরের মানুষকে সচেতন করে তুলতে হবে।

তিনি বলেন, বর্তমান সরকার জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী উপলক্ষে দেশব্যাপী তিন কোটি গাছের চারা রোপনের পরিকল্পনা গ্রহণ করেছে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ‘চ্যাম্পিয়ন অব দ্যা আর্থ’ সম্মাননা পাওয়ার মধ্য দিয়ে বিশ্ববাসীর জানার সুযোগ হলো, বাংলাদেশের জনগণ প্রকৃতির প্রতিকূলতার মধ্যে শুধু টিকে থাকতে জানে না বরং বৈশ্বিক উষ্ণায়ন ও জলবায়ু পরিবর্তনের ফলে সৃষ্ট ঝুঁকিগুলো দক্ষভাবে মোকাবিলা করার সুদূরপ্রসারী কর্মকৌশলও নিতে পারে।

তিনি আরো বলেন, বিএনপির কাছে ক্ষমতা ভোগের বস্তু। ক্ষমতা ফিরে পেতে তাই তো মরিয়া হয়ে আছে। আর আওয়ামী লীগের রাজনীতি ত্যাগের। এজন্যই জনগণ শেখ হাসিনার প্রতি আস্থাশীল।

সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বলেন, বিএনপি এদেশের ইতিহাসে গণতন্ত্রের হত্যাকারী হিসেবে চিহ্নিত। বিএনপি নির্বাচনের নামে নির্বাচনের কফিনে বারবার গণতন্ত্রকে লাশ বানিয়েছিল।

বন ও পরিবেশ বিষয়ক উপকমিটির চেয়ারম্যান অধ্যাপক ড. খন্দকার বজলুল হকের সভাপতিত্বে বঙ্গবন্ধু এভিনিউয়ে এ সময় আরো উপস্থিত ছিলেন আওয়ামী লীগের বন ও পরিবেশ বিষয়ক সম্পাদক দেলোয়ার হোসেনসহ অন্যরা।