আজ রবিবার, ৪ঠা ডিসেম্বর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ, ১৯শে অগ্রহায়ণ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ১০ই জমাদিউল আউয়াল, ১৪৪৪ হিজরি
আজ রবিবার, ৪ঠা ডিসেম্বর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ, ১৯শে অগ্রহায়ণ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ১০ই জমাদিউল আউয়াল, ১৪৪৪ হিজরি

দেশবিরোধী অপপ্রচারের সমুচিত জবাব দেওয়ার আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর

সরকার ও বাংলাদেশের বিরুদ্ধে অপপ্রচারের যোগ্য জবাব দিতে প্রবাসী বাংলাদেশিদের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। আওয়ামী লীগের আমলে দেশের অভূতপূর্ব উন্নয়নের বাস্তব চিত্র তুলে ধরতে এবং বিশ্বে বাংলাদেশ যে মর্যাদা ও সম্মান অর্জন করেছে তা ধরে রেখে মাথা উঁচু করে বিশ্বব্যাপী চলার আহ্বান জানান তিনি।
যুক্তরাষ্ট্রের নিউইয়র্কে স্থানীয় সময় শনিবার যুক্তরাষ্ট্র প্রবাসীদের দেওয়া ভার্চুয়াল সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে এ আহ্বান জানান প্রধানমন্ত্রী। তিনি বলেন, আমাদের বিরুদ্ধে চালানো অপপ্রচারের তাৎক্ষণিক উপযুক্ত জবাব দিন।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, এই অপপ্রচারের নেপথ্যে যুদ্ধাপরাধী ও জাতির পিতার খুনিদের আত্মীয়-স্বজনদের পাশাপাশি দেশ ছেড়ে পালিয়ে যাওয়া অর্থ পাচারকারীসহ নানা অপরাধী রয়েছে। সোশ্যাল মিডিয়ায় যারা অপপ্রচার চালাচ্ছে তাদের বেশিরভাগই অপকর্মে জড়িত থাকায় চাকরি থেকে বরখাস্ত হয়েছে। অথবা অপরাধ করে নিজেরাই দেশ ছেড়ে পালিয়েছে।

সোশ্যাল মিডিয়া ব্যবহার করে সরকার এবং বাংলাদেশ সম্পর্কে মিথ্যা ও বানোয়াট তথ্য দিয়ে অন্যদের সবক দিচ্ছে এমন ব্যক্তিদের চরিত্র ও অপকর্ম জনসমক্ষে তুলে ধরার আহ্বান জানান প্রধানমন্ত্রী। তিনি বলেন, তাদের কথায় কর্ণপাত করবেন না। বরং আমাদের উন্নয়নকে জনগণের সামনে তুলে ধরুন।

শেখ হাসিনা প্রবাসী বাংলাদেশিদের প্রতি তার সরকারের করা উন্নয়ন কর্মকাণ্ডকে সব স্থানে এগিয়ে নেয়ার আহ্বান জানান। তিনি বলেন, বাংলাদেশের উন্নয়ন সম্পর্কে আপনাদের এলাকার কংগ্রেসম্যান, সিনেটর এবং নির্বাচিত প্রতিনিধিদের অবহিত করুন এবং তাদের সঙ্গে যোগাযোগ বজায় রাখুন।

তিনি আরো বলেন, বিএনপি আমলে বাজেটের আকার ছিল মাত্র ৬০ হাজার কোটি টাকা। আওয়ামী লীগ সরকারের শেষ বাজেট ছিল ৬ লাখ কোটি টাকার বেশি। বাংলাদেশ এখন বিশ্বে যে মর্যাদা ও সম্মান অর্জন করেছে তা সমুন্নত রাখার জন্য আমি সবাইকে আহ্বান জানাচ্ছি।

মিথ্যা ও বানোয়াট অভিযোগ এনে পদ্মাসেতু প্রকল্প থেকে বিশ্বব্যাংকের তহবিল প্রত্যাহারের সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে অবস্থান নেয়ায় প্রবাসী বাংলাদেশিদের ধন্যবাদ জানান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। তিনি বলেন, বাংলাদেশের নিজস্ব অর্থায়নে পদ্মাসেতু নির্মাণের সিদ্ধান্ত বিশ্বে আমাদের ভাবমূর্তি বদলে দিয়েছে। এতে প্রমাণিত হয়েছে- বাংলাদেশ যা বলে তা করার ক্ষমতা রাখে।

এ সময় আবারো জলবায়ু পরিবর্তন, কোভিড-১৯ মহামারি, রাশিয়া-ইউক্রেন যুদ্ধ, নিষেধাজ্ঞা ও পাল্টা নিষেধাজ্ঞার কারণে বিশ্বে আসন্ন তীব্র খাদ্যসংকট সম্পর্কে প্রবাসীদের সতর্ক করে ভবিষ্যতে তা থেকে বাঁচতে আরো বেশি খাদ্য উৎপাদনের আহ্বান জানান প্রধানমন্ত্রী। তিনি বলেন, একটি প্রকট খাদ্যসংকট আসন্ন। তাই দেশে আপনাদের স্বজনদের বলুন কোনো জমিই অনাবাদী রাখা যাবে না।

শেয়ার করুন
Share on Facebook
Facebook
Pin on Pinterest
Pinterest
Tweet about this on Twitter
Twitter
Share on LinkedIn
Linkedin